৭ম শ্রেণির কৃষি শিক্ষা অ্যাসাইনমেন্ট সমাধান ১৪তম সপ্তাহ

৭ম শ্রেণির ১৪তম সপ্তাহের কৃষি শিক্ষা এসাইনমেন্ট সমাধান নিয়ে বরাবরের মত হাজির হয়েছি । মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর থেকে গত ৩২/০৮/২০২১ ইং তারিখে ১৪তম সপ্তাহের জন্য অ্যাসাইনমেন্ট প্রশ্ন প্রকাশ করা হয় । ১৪তম অ্যাসাইনমেন্ট PDF Download করতে এখানে ক্লিক করুন ।

৭ম শ্রেণির কৃষি শিক্ষা অ্যাসাইনমেন্ট সমাধান ১৪তম সপ্তাহ




Class 7 Agriculture Assignment Answer 14th Week



অধ্যায় ও অধ্যায়ের শিরােনাম 
দ্বিতীয় অধ্যায়: কৃষি প্রযুক্তি

পাঠ্যসূচিতে অন্তর্ভুক্ত পাঠ নম্বর ও বিষয়বস্তু
পাঠ ৫: বীজ উৎপাদন প্রযুক্তি 
পাঠ ৬: বীজ হতে চারা উৎপাদন 
পাঠ ৭: উদ্ভিদের অঙ্গজ বংশ বৃদ্ধি 
পাঠ ৮: প্রাণীর বংশ বৃদ্ধি প্রযুক্তি 

অ্যাসাইনমেন্ট বা নির্ধারিত কাজ 
গ্রামের শিক্ষিত যুবক জহির ভালাে বীজ উৎপাদনের জন্য সিদ্ধান্ত নিলেন। এজন্য তিনি মানসম্মত বীজ উৎপাদনের কৌশল অবলম্বন করলেন। উপরােক্ত তথ্যের আলােকে নিচের প্রশ্নগুলাের উত্তর দাও। 
  1. মানসম্মত বীজ উৎপাদনের জন্য জহিরকে যে সকল শর্ত পালন করতে হবে সেগুলাের নাম উল্লেখ কর। 
  2. জহিরের বীজ ফসলের জমি পৃথক রাখার কারণ কী? 
  3. তিনি কী কারণে রগিং করেছিলেন? 
  4. ভালাে ফসল উৎপাদনের জন্য জহির কোন ধরনের বীজ ব্যবহার করবেন? 
  5. মৌল বীজ ওভিত্তি বীজের পার্থক্য কী?
নির্দেশনা
১. অ্যাসাইনমেন্ট তৈরি করতে এনসিটিবি প্রণীত ২০২১ শিক্ষাবর্ষের কৃষি শিক্ষা পাঠ্যবই এ প্রদত্ত দ্বিতীয় অধ্যায়ের পাঠ-৫ ও ৬ থেকে সহায়তা নেওয়া যেতে পারে 
২. এছাড়াও বিষয় শিক্ষক, অভিভাবক, ইন্টারনেট ও কৃষি বিষয়ে অভিজ্ঞ ব্যক্তিবর্গের সহায়তা নেওয়া যেতে পারে

৬ষ্ঠ শ্রেণির ১৪তম সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট সমাধান

বিষয়: কৃষি শিক্ষা

১। মানসম্মত বীজ উৎপাদনের জন্য জহিরকে যে শর্ত পালন করতে হবে সেগুলাের নাম উল্লেখ কর। 


উত্তর : মানসম্মত বীজ উৎপাদনের জন্য জহিরকে যে শর্তগুলাে পালন করতে হবে সেগুলাের নাম উল্লেখ করা হলােঃ 

    • বীজের বিশুদ্ধতা সংরক্ষণ, 
    • বীজ ফসলের পৃথকীকরণ ,
    • বীজ - শােধন, 
    • বীজবপন পদ্ধতি, 
    • আন্তঃ পরিচর্যা 
    • বীজ ফসল কর্তন, 
    • বীজ শুকানাে ও সংরক্ষণ।
২। জহিরের বীজ ফসলের জমি পৃথক রাখার কারণ কী?

উত্তর : বীজ ফসলের জমিকে অবীজ ফসলের জমি থেকে নিরাপদ দূরত্বে রাখার নামই পৃথকীকরণ। নিরাপদ দূরত্ব বজায় রাখা অনেক সময় সম্ভব হয় না। তাই বীজ ফসলের চারদিকে বর্ডার লাইন হিসেবে একই ফসলের অতিরিক্ত চাষ করতে হয়। এতে পর-পরাগয়নের সম্ভাবনা থাকে না।

৩। তিনি কী কারণে রগিং করেছিলেন?

উত্তর : বীজের জাতের বিশুদ্ধতা রক্ষার জন্য রগিং করতে হয়। রগিং অর্থ হচ্ছে আকাঙ্খিত বীজের গাছ ছাড়া আগাছাসহ অন্য যেকোনাে অনাকাঙিক্ষত গাছ জমি থেকে শিকড়সহ তুলে ফেলা। ফুল আসার আগেই। অনাকাঙিক্ষত গাছ। রগিং করা ভালাে।

৪। ভালাে ফসল উৎপাদনের জন্য জহির কোন ধরনের বীজ ব্যবহার করবেন?

উত্তর : ভালাে ফসল উৎপাদনের জন্য জহির প্রত্যয়িত বীজ ব্যবহার করবেনঃ কৃষকের প্রত্যয়িত বীজ ছাড়া অন্য বীজ ব্যবহার করা উচিৎ নয়। জহির যদি ফসল উৎপাদনে প্রত্যয়িত বীজ ছাড়া সারহীন বীজ ব্যবহার করেন তবে। ফসল ভালাে না হওয়ার আশঙ্খা বেশি থাকে। অনেক পরীক্ষা-নিরীক্ষার পরই বিশেষজ্ঞরা প্রত্যয়িত বীজ ব্যবহারের অনুমােদন প্রদান করেন।

৫ । মৌলবীজ ও ভিত্তি বীজের পার্থক্য কী?

উত্তর : মৌল বীজ ও ভিত্তি বীজের পার্থক্য হলােঃ

মৌলবীজ : উদ্ভিদ প্রজন্ম বিজ্ঞানীদের নিবিড় তত্ত্বাবধানে গবেষণা প্রতিষ্ঠানে উচ্চ বংশগত গুণাগুণ সম্পন্ন যে বীজ উৎপাদন করা হয়, তাকে মৌলবীজ বলে।

ভিত্তি বীজ: বীজ উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠানের খামারে বীজ অনুমােদন সংস্থার নিয়ন্ত্রিত পরিবেশে মৌল বীজ থেকে যে বীজ উৎপাদন করা হয়, তাকে ভিত্তি বীজ বলে।

মৌল বীজ: মৌল বীজ সাধারণত কম পরিমাণে উৎপাদন করা হয়। এ বীজ বিক্রয়যােগ্য নয়।

ভিত্তি বীজ: এই বীজ বিক্রয়যােগ্য।

Conclusion:

এই ছিল ৭ম শ্রেণির ১৪তম সপ্তাহের কৃষি শিক্ষা অ্যাসাইনমেন্ট এর নমুনা সমাধান । আশা করি শিক্ষার্থীরা উপরোক্ত আলোচনা থেকে সমাধান করার ধারনা পাবে ।


Last Line: ৬ষ্ঠ৭ম শ্রেণির ১৪তম সপ্তাহের কৃষি শিক্ষা এসাইনমেন্ট সমাধান

Post a Comment

0 Comments